Tuesday, December 1, 2020
করোনা ভাইরাস করোনায় আরেকজনের মৃত্যু, মোট ৬ জনের প্রাণহানি

করোনায় আরেকজনের মৃত্যু, মোট ৬ জনের প্রাণহানি

করোনায় আরেকজনের মৃত্যু হয়েছে বাংলাদেশে। এ নিয়ে এই ভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে দেশে ছয়জনের মৃত্যু হলো। আজ বুধবার ভিডিও কনফারেন্সে এ কথা জানিয়েছেন স্বাস্থ্যমন্ত্রী জাহিদ মালেক। সরকারের রোগতত্ত্ব, রোগনিয়ন্ত্রণ ও গবেষণা প্রতিষ্ঠানের (আইইডিসিআর) নিয়মিত অনলাইন ব্রিফিংয়ে ভিডিও কনফারেন্সে যুক্ত হয়ে এই তথ্য দেন স্বাস্থ্যমন্ত্রী।

গত ২৪ ঘণ্টায় দেশে ১৫৭ জনকে পরীক্ষা করা হয়েছে। এদের মধ্যে থেকে  নতুন রোগী শনাক্ত  হয়েছেন তিনজন। বাংলাদেশে এ নিয়ে এখন পর্যন্ত করোনাভাইরাস আক্রান্ত রোগীর সংখ্যা দাঁড়িয়েছে ৫৪ জনে।

স্বাস্থ্যমন্ত্রী  বলেছেন,বিভিন্ন স্থানে সরকারি নির্দেশনা কিছুটা অমান্য হচ্ছে। আমরা দেখেছি গ্রামে, বাজারে অনেকে ঘোরাফেরা করছেন, চায়ের দোকানে বসছেন। এটা ঠিক হচ্ছে না। আপনাদের অনুরোধ, আপনারা ঘরে থাকবেন, বাইরে বের হবেন না।

সন্দেহভাজনদের নমুনা পরীক্ষা করার নির্দেশ দিয়েছেন স্বাস্থ্যমন্ত্রী। তিনি বলেছেন, বেশি বেশি করে টেস্ট করুন। নিজেরা সুস্থ থাকুন।

করোনা আক্রান্তদের মাধ্যমে দেশে কমিউনিটি ট্রান্সমিশন হচ্ছে তবে তা সীমিত আকারে বলে জানিয়েছে আইইডিসিআর। ডাক্তারদের চেম্বার খোলা রাখার আহ্বান আইইডিসিআরের।

আইইডিসিআরের ব্রিফিংয়ে জানানো হয়, গত ২৪ ঘন্টায় ১৫৭ জনের নমুনা পরীক্ষা করেছে আইইডিসিআর। এতে নতুন করে আইসোলেশনে নেয়া হয়েছে ৯ জনকে। এ নিয়ে আইসোলেশনে আছেন ৭৩ জন। একজনকে আইসোলেশন থেকে ছেড়ে দেয়া হয়েছে। দেশে আক্রান্তদের মধ্যে এ পর্যন্ত ২৬ জন সুস্থ হয়ে বাড়ি ফিরেছেন। করোনায় আরেকজনের মৃত্যু হয়েছে।

জাহিদ মালেক বলেন, আপনারা জানেন– প্রধানমন্ত্রীর দিকনির্দেশনায় দেশবাসী আশ্বস্ত হয়েছে। হাসপাতালে ভেন্টিলেটর বসাচ্ছি। সরকারি হাসপাতালে ৫০০ ভেন্টিলেটর বসানোর কাজ চলছে। তিনশ ইতিমধ্যে আনা হয়েছে। হাসপাতালগুলোকেও প্রস্তুত করা হচ্ছে।  

তিনি আরও বলেন, বেসরকারি হাসপাতালে প্রায় ৭শ ভেন্টিলেশন প্রস্তুত আছে । প্রতিদিনই আমাদের স্বাস্থ্যসেবা ব্যবস্থার উন্নতি করে চলেছি। বিভিন্ন হাসপাতালে মেডিক্যাল ভেন্টিলেটর যুক্ত হচ্ছে। এছাড়া কভিডের জন্য আরো হাসপাতাল তৈরি করছি। ইতোমধ্যে বেশ কয়েকটি হাসপাতাল তৈরি হয়েছে। এছাড়া বিভিন্ন মেডিক্যাল কলেজে টেস্টিং সুবিধা বৃদ্ধি করা হচ্ছে।

করোনা মোকাবিলায় সরকারকে সহযোগিতা করতে যতদিন প্রয়োজন ততদিন সেনাবাহিনী মাঠে থাকবে বলে জানিয়েছেন সেনাপ্রধান

গত ৮ই মার্চ বাংলাদেশে প্রথম করোনাভাইরাস শনাক্ত হওয়ার আনুষ্ঠানিক ঘোষণা আসে। তখন বলা হয়, আক্রান্ত তিনজনের মধ্যে দুজন ইতালি থেকে সম্প্রতি দেশে ফিরেছেন। তাঁদের কাছ থেকে একজন  করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন। এরপর ১৮ই মার্চ প্রথম ব্যক্তির মৃত্যুর কথা জানায় আইইডিসিআর।

সূত্রঃ www.corona.gob.bd

করোনা ভাইরাস VS ইমিউনিটি_বুস্টার_টি। বিস্তারিত পড়তে এখানে ক্লিক করুন

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

- Advertisment -

সাম্প্রতিক আপডেট

স্বাস্থ্যকর্মীদের পর্যাপ্ত সরঞ্জাম নেই,চিকিৎসায় বেহাল দশা

চীনে গত ডিসেম্বরেই করোনাভাইরাস শনাক্ত হয়। মার্চের ৮ তারিখ বাংলাদেশে প্রথম করোনা রোগী শনাক্ত হয়। এরপরই স্বাস্থ্যকর্মীদের সুরক্ষা ব্যবস্থার বিষয়টি আলোচনায় আসে।...

যুক্তরাষ্ট্র WHO তে অর্থায়ন বন্ধ করবে-ঘোষণা দিলেন ট্রাম্প

মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প বলেছেন যে তিনি বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থাকে WHO (ডাব্লুএইচও) অর্থায়ন বন্ধ করতে যাচ্ছেন। কারণ করোনভাইরাস প্রাদুর্ভাবের প্রতিক্রিয়ায় এটি "এর...

নতুন আক্রান্ত ২১৯ জন, মৃত্যুবরণ করেছে ৪ জন

দেশে গত ২৪ ঘণ্টায় করোনায় নতুন আক্রান্ত হয়েছেন ২১৯ জন। এছাড়া আরো ৪ জন মৃত্যুবরণ করেছেন। নতুন আক্রান্ত ২১৯...

আক্রান্তের সংখ্যা এক হাজার অতিক্রম।নতুন আক্রান্ত ২০৯

করোনায় বাংলাদেশে মাত্র ৩৮ দিনেই আক্রান্তের সংখ্যা এক হাজার অতিক্রম করলো। গত ২৪ ঘণ্টায় নতুন শনাক্ত হয়েছে ২০৯ জন।

মতামত